অভিবাসনঅভিবাসন ইস্যুতে একসঙ্গে কাজ করতে ইইউকে ভূমধ্যসাগরীয় দেশগুলোর আহ্বান

অভিবাসন ইস্যুতে একসঙ্গে কাজ করতে ইইউকে ভূমধ্যসাগরীয় দেশগুলোর আহ্বান

- Advertisment -spot_img

ডেস্ক রিপোর্ট

পাঁচটি ভূমধ্যসাগরীয় দেশের মন্ত্রীরা শনিবার যেসব দেশ থেকে অভিবাসী আসে, তাদের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক চুক্তি ‘গভীর’ করার আহ্বান জানিয়েছেন৷

অভিবাসনের মূল কারণগুলো মোকাবিলায় তহবিল বাড়ানোর আহ্বানও জানিয়েছেন দেশগুলোর মন্ত্রীরা।

গ্রান কানারিয়া দ্বীপে আয়োজিত এই বৈঠকে ভূমধ্যসাগরীয় দেশগুলোর জোট মেড-ফাইভ এর দেশ- সাইপ্রাস, গ্রিস, ইটালি, মাল্টা এবং স্পেন এর স্বরাষ্ট্র এবং অভিবাসী বিষয়ক মন্ত্রীরা ১১ এপ্রিল ইইউ পার্লামেন্টে গৃহীত নতুন অভিবাসন এবং আশ্রয় চুক্তি নিয়ে আলোচনা করেছেন৷

কয়েক বছর ধরে আলোচনার পর অবশেষে অভিন্ন অভিবাসন নীতির এই চুক্তিতে ব্যাপক সংস্কার আনা হয়। জোটের ২৭টি দেশের অভিবাসীর দায়িত্ব ভাগ করে নেয়া এবং সীমান্ত ব্যবস্থাপনা আরো কঠোর করার ব্যাপারে বাধ্যবাধকতা আরোপ করা হয়েছে এই চুক্তিতে।

এই চুক্তির ফলে এবার থেকে শুধু গ্রিস ও ইটালির মতো দেশকে শরণার্থীদের ঢল আর একা সামলাতে হবে না৷ শরণার্থীরাও আর বিচ্ছিন্ন আশ্রয় নীতির দুর্বলতার সুযোগ নিয়ে ইইউ-র একাধিক সদস্য দেশে স্বীকৃতির চেষ্টা চালাতে পারবেন না৷

এর আগে ইইউ-র বেশিরভাগ সদস্য দেশের সরকার সেই প্রস্তাব অনুমোদন করেছিল৷ ইউরোপীয় কমিশন সেই সব আইন কার্যকর করার উপায় বাতলে দেওয়ার পর ২০২৬ সাল থেকে সেই উদ্যোগ কার্যকর করার পরিকল্পনা রয়েছে৷

চুক্তিটিকে ‘ঐতিহাসিক’ আখ্যা দিয়ে স্পেনের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ফার্নান্দো গ্রান্দে-মারলাস্কা বলেছেন যে ‘এখনও অনেক দীর্ঘ পথ যেতে হবে’ এবং এর সমাধান অভিবাসনের মূল কারণগুলোকে ‘উৎসেই’ মোকাবিলা করতে হবে।

এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘‘অভিবাসন ব্যবস্থাপনার মূল চাবিকাঠি দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতার মধ্যে নিহিত৷’’ অনিয়মিত অভিবাসীদের প্রবাহ রোধ করতে ‘তৃতীয় দেশের সঙ্গে অংশীদারত্ব ও চুক্তি আরো গভীর ও প্রসারিত করতে’ তিনি ইউরোপীয় কমিশনের প্রতি আহ্বান জানান৷

ইউরোপীয় ইউনিয়নের বর্তমান নিয়ম অনুসারে অভিবাসীরা প্রথম যে দেশে আসেন, সেই দেশকেই তাদের আশ্রয় দেয়ার দায়িত্ব নিতে হয়৷ তাদের আশ্রয় প্রার্থনার আবেদন যাচাই এবং তা অগ্রহণযোগ্য বলে বিবেচিত হলে অভিবাসীদের ফেরত পাঠানোর দায়িত্বও সেই দেশকেই বহন করতে হয়। এই নিয়মের ফলে গ্রিস এবং ইটালির মতো ভূমধ্যসাগর পাড়ের দেশগুলোকে বিপুল সংখ্যক অভিবাসীর ঢল মোকাবিলা করতে হচ্ছে৷ এই ইস্যুকে কাজে লাগিয়ে বাড়ছে অভিবাসী-বিরোধী ডানপন্থি রাজনৈতিক দলগুলোর জনপ্রিয়তাও৷

নতুন চুক্তিতে আশ্রয়প্রার্থীদের সীমান্তেই রাখার জন্য সীমান্তকেন্দ্র নির্মাণ এবং তাদের কাউকে কাউকে ইইউ এর বাইরের ‘নিরাপদ’ দেশে ফেরত পাঠানোর নিয়মও অন্তর্ভুক্ত রয়েছে৷ অভিবাসী বিষয়ক দাতব্য সংস্থা এবং এনজিওগুলো এই নিয়মের নিন্দা জানিয়েছে৷ অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল সতর্ক করেছে, নতুন এই আইন ‘বৃহত্তর মানবিক দুর্ভোগ’ সৃষ্টি করতে পারে।
সূত্র: ইনফোমাইগ্রেন্টস।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest news

সোনার দাম বাড়ল

ঢাকা অফিস বাংলাদেশের বাজারে সোনার দাম ফের বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে বাজুস। সব থেকে ভালো মানের বা ২২ ক্যারেটের এক ভরি...

জামালপুরে বন্যার পানিতে গোসলে নেমে ৪ জনের মৃত্যু

জামালপুর প্রতিনিধি: জামালপুরে বন্যার পানিতে গোসল করতে নেমে চারজনের মৃত্যু হয়েছে। রোববার (১৪ জুলাই) মেলান্দহ উপজেলার শ্যামপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ বালুচর...

বাংলাদেশ থেকে তিন হাজার কর্মী নেবে ইইউ‘র চার দেশ: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত (ইইউ) চারটি দেশ বাংলাদেশ থেকে তিন হাজার কর্মী নেবে। দেশ চারটি হলো ইতালি, জার্মানি, গ্রিস...

কোটা পুনর্বহাল করে‌ হাইকোর্টের রায়ের পূর্ণাঙ্গ কপি প্রকাশ

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা সরকারি চাকরিতে মুক্তিযোদ্ধাসহ কোটা পদ্ধতি বাতিলের পরিপত্র অবৈধ ঘোষণা করে পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ করেছেন হাইকোর্ট। রোববার (১৪ জুলাই)...
- Advertisement -spot_img

কোটার সমাধান আদালতের মাধ্যমেই হতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা কোটাবিরোধী আন্দোলন ইস্যুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, কোটা পদ্ধতি বাতিলের দাবিতে শান্তিপূর্ণ আন্দোলনে বাধা নেই, তবে...

মুক্তিযোদ্ধার নাতি-নাতনিরা পাবে না তো রাজাকারের নাতিরা পাবে?

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা ২০১৮ সালে আন্দোলন ও সহিংসতার ঘটনায় বিরক্ত হয়ে কোটা বাতিল করেছিলেন উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন,...

Must read

সোনার দাম বাড়ল

ঢাকা অফিস বাংলাদেশের বাজারে সোনার দাম ফের বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে...

জামালপুরে বন্যার পানিতে গোসলে নেমে ৪ জনের মৃত্যু

জামালপুর প্রতিনিধি: জামালপুরে বন্যার পানিতে গোসল করতে নেমে চারজনের মৃত্যু...
- Advertisement -spot_img

You might also likeRELATED
Recommended to you